উখিয়ায় ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে গ্রামবাসির মানববন্ধন।

01.jpg

উখিয়া ক্রাইম নিউজ ডেস্ক::

উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের এক ইউপি সদস্য কর্তৃক গ্রামবাসির নিকট থেকে বিভিন্ন ক্ষেত্রে নিরহ গ্রামবাসির নিকট থেকে চাঁদা আদায়ের অভিযোগ উঠেছে। চাঁদা না দেওয়ায় ইউপি সদস্য সহ তার লাঠিয়াল বাহিনীরা হামলা চালিয়ে একজনকে গুরুতর আহত করেছে। উক্ত ইউপি সদস্যদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য স্থানীয় গ্রামবাসি উখিয়া থানায় একটি লিখিত এজাহার দায়ের করেছে। এছাড়াও শুক্রবার বিকেলে নিরহ গ্রামবাসি বিক্ষোভ মিছিল সহ মানববন্ধন করেছে।

থানায় দায়েরকৃত এজাহার সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের মধ্যম হলদিয়াপালং গ্রামের মৃত মোঃ কালুর ছেলে আবদু ছবুর কোম্পানি দীর্ঘ দিন ধরে এম, কে,কে ব্রীক ফিল্ডে পরিচালক হিসাবে কাজ করে আসছিল। উক্ত ব্রীক ফিল্ডে ইট তৈরির জন্য গত বৃহস্পতিবার ডাম্পার গাড়ী নিয়ে বাহির থেকে মাটি নিয়ে আসার সময় ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আলী আহম্মদের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসীরা ডাম্পার গাড়ী গতিরোধ করে প্রতিনিয়ত চাঁদা দাবী করে। চাঁদা না দেওয়ায় ইউপি সদস্য আলী আহম্মদের নেতৃত্বে মৃত কালা মিয়ার ছেলে মোঃ ফারুক, মৃত আব্দুস ছালামের ছেলে মোঃ আশেক, আলী আহম্মদের ছেলে বোরহান উদ্দিন, শাহ আলমের ছেলে ইমরান ও আলী আহম্মদের ছেলে মেহেদী হাসানসহ ২০/২৫জনের একদল সন্ত্রাসী স্থানীয় আব্দু ছবুর কোম্পানি উপর হামলা চালিয়ে মাটিতে ফেলে দিয়ে তার পকেটে থাকা ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয় এবং তাকে মারধর করে গুরুতর আহত করে। এসময় তার আত্মচিৎকারে স্থানীয় গ্রামবাসি এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে উখিয়া হাসপাতালে ভর্তি করে। উক্ত ঘটনায় আবদু ছবুর বাদী হয়ে ৬ জনকে আসামী করে উখিয়া থানায় একটি লিখিত এজাহার দায়ের করেছে। এব্যাপারে থানার ওসি মোঃ আবুল খায়ের তদন্ত পূর্বক জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে তিনি সাংবাদিকদের আশ^স্থ করেন।
এদিকে উক্ত ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার দাবীতে স্থানীয় গ্রামবাসি মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে। মানববন্ধনে অংশ গ্রহনকারী ছমিরা আকতার, রুমা আকতার, রুবি আকতার, আব্দুল হাকিম, ইয়াসিন আলী এবং আলী আকবর সহ বেশ কয়েকজন নিরহ গ্রামবাসি অভিযোগ করে জানান, ইউপি মেম্বার আলী মিয়া ও তার পরিবারের লোকজন তাদের নিকট থেকে প্রতিনিয়ত চাঁদা আদায় করে আসছে। দাবীকৃত চাঁদা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে তাদেরকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি,ধমকি দিয়ে থাকে।
এ ব্যাপারে ইউপি সদস্য আলী মিয়া জানান, প্রতিপক্ষ একটি মহল তাকে হেও করার জন্য বিভিন্ন ভাবে অপপ্রচার চালাচ্ছে। সে চ্যালেঞ্জ করে বলেন, যদি কেউ প্রমাণ করতে পারে আমি চাঁদা দাবী করেছি বা চাঁদা নিয়েছে তাহলে ইউপি সদস্য থেকে পদত্যাগ করব।

Share this post

scroll to top