থাইংখালীর শীর্ষ মানবপাচারকারী হেলালকে ধরিয়ে দিন

download.jpg

উখিয়া ক্রাইম নিউজ ডেস্ক::

কক্সবাজারের উখিয়ার উপক’লীয় সাগর পথে মানবপাচারকারীরা ফের সক্রিয় হয়ে উঠেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
মিয়ানমার থেকে সম্প্রতি পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের নানা প্রলোভন দেখাতে শুরু স্বরাষ্ট্রমন্ত্রনালয়ের তালিকাভুক্ত শীর্ষ মানবপাচারকারীরা। সম্প্রতি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের অভিযানে গ্রেপ্তার হওয়া গডফাদাররা ফের এলাকায় প্রকাশ্যে হয়ে পাচার কাজের নীল নকশা তৈরি করছে বলে জানা গেছে।

অনুসন্ধানে জানা যায়, থাইল্যান্ড ও মালেশিয়ার অস্থায়ী কারাগার নিয়ন্ত্রক উপজেলার সীমান্তবর্তী পালংখালী ইউনিয়নের থাইংখালীর ধামনখালী গ্রামের মৃত মৌলানা আবদু শুক্রুরের ছেলে অসংখ্য অভিবাসীদের হত্যাকারী নামে খ্যাত একাধিক মামলার আসামী হেলাল উদ্দিন প্রকাশ দালাল হেলাল। এলাকাবাসী সূত্র মতে, সে সম্প্রতি মানবপাচার মামলায় আটক হওয়ার মাস খানিক আগে বালুখালী রোহিঙ্গা বস্তির শীর্ষ ইয়াবা ডন আমান উল্লার নিকট থেকে প্রায় ৩০ হাজার পিস ইয়াবা লুট করে তাকে পথে বসিয়েছে বলে জানা গেছে। পরে হেলাল দীর্ঘ দিন কারাবাস করে জামিনে মুক্ত হয়ে থাইংল্যান্ড ও মালেশিয়ার শীর্ষ পাচারকারীদের সাথে আতাঁত করে বৃহত্তর সিন্ডিকেট তৈরি করে বস্তির সাধারন রোহিঙ্গা ও স্থানীয় বেকার যুবকদের রাতারাতি কোটিপতি হওয়ার স্বপ্ন দেখিয়ে তাদের সাগর পথের ইনানী, মোঃ শফিরবিল, মনখালী, টেকনাফের শাহপরীরদ্বীপ, পেচারদ্বীপসহ বিভিন্ন ট্রানজিট পয়েন্ট দিয়ে প্রশাসনের চোখ কে ফাঁকি দিয়ে পাচারকাজের প্রস্তুতি নিয়েছে বলে জানা যায়। সচেতন মহলের অভিযোগ, অচিরেই হেলালকে গ্রেপ্তার পূর্বক ক্রস ফায়ারের আওতায় নিয়ে আসলে এলাকার উঠতি বয়সী ছাত্র, যুবসমাজ ও সাধারন রোহিঙ্গারা তার পাচারের কবল থেকে রক্ষা পাবে বলে তারা জানান। এ ব্যাপারে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল খায়ের জানান শিঘ্রই হেলালকে গ্রেপ্তার পূর্বক কঠিন শাস্তির আওতায় নিয়ে আসা হবে।

Share this post

scroll to top