সংবাদ শিরোনাম
রামু সেনানিবাসে ৪ ইউনিটের পতাকা উত্তোলন করলেন সেনা প্রধানউখিয়ায় একাধিক মামলার আসামি রফিকুল হুদা আটক২ লাখ ৮০ হাজার ইয়াবাসহ মিয়ানমারের ৭ নাগরিক আটককক্সবাজার সড়কে বাস ডাকাতির ঘটনায় গ্রেপ্তার ৬নাইজেরিয়ায় ১১০ কৃষকের গলা কেটে বর্বর হত্যাকাণ্ডউখিয়া প্রেসক্লাব নির্বাচনের প্রার্থীদের তালিকা চুড়ান্ত, বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ১উখিয়ায় বন বিভাগের অভিযানে অজগর সাপ উদ্ধারউখিয়ায় বন বিভাগের অভিযানে ৪টি অবৈধ ড্রেজার মেশিন ও ১৪টি…রোহিঙ্গা সুরক্ষায় নির্দেশনা অনুযায়ী আদালতে মিয়ানমারের দ্বিতীয় প্রতিবেদনজাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ও কারিগরি বোর্ডের পরীক্ষার্থীদের প্রস্তুতি নিতে বললেন শিক্ষামন্ত্রী

উখিয়া জাদিমোরার ইয়াবা কবির গ্রেপ্তার এড়াতে ঘুরছে বহি বিশ্বে – হাল ধরেছেন স্ত্রী

nn.jpg

উখিয়া ক্রাইম নিউজ ডেস্ক::

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রনালয়ের তালিকাভুক্ত উখিয়া – টেকনাফ সীমান্তের আন্ডার গ্রাউন্ডে থাকা ইয়াবা মাপিয়া  উখিয়ার রাজাপালং ইউনিয়নের জাদিমোরা নামক এলাকার আকবর হোসনের পুত্র কবির আহম্মদ প্রকাশ ইয়াবা কবির। সে বেড়ে উঠা জীবন থেকে শুরু করে অদ্য ৫ বছর আগে পর্যন্ত উখিয়া – টেকনাফ সড়কে চলাচলরত যাত্রীবাহি বিভিন্ন বাসে কিলি পান বিক্রি করে পরিবারের বরন পোষন চালিয়ে আসত বলে জানা যায়।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, সামন্য পান বিক্রেতা থেকে কোটিপতি কবির যাত্রীবাহি বাসে কিলি পান বিক্রি করতে করতে উখিয়া থেকে টেকনাফ আসা যাওয়া করার প্রাককালে টেকনাফের শীর্ষ ইয়াবা কারবারীদের সাথে বৃহত্তর সিন্ডিকেট তৈরি করে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে দেশের ছাত্র ও যুবসমাজ ধ্বংসকারী মরণ নেশা ইয়াবা পাচার করে লাখপতি থেকে কোটিপতি হওয়ার পর থেকে ইয়াবার কালো টাকার পাহাড় দিয়ে দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহর ঢাকা, চট্রগ্রাম,কক্সবাজারসহ বিভিন্ন জায়গায় কোটি কোটি টাকার জায়গা- জমি, নামে বেনামে একাধিক গাড়ী, বাড়ী বিকাশ এজেন্ডসহ পাহাড়সম সম্পদ গড়ে তোলে ক্ষান্ত না হয়ে ফের ২০ কোটি টাকা ব্যায়ে রাজাপালং মাদ্রাসার যাত্রী ছাউনির পাশে সরকারি খাস জমি দখল করে নির্মান করে যাচ্ছে ১০ তলা বিশিষ্ট আলিশান স্বর্ণকমল। তৎকালিন খুলনার এরশাদ সিকদারের স্বর্ণকমলকেও হার মানিয়েছে। কিন্তু দেখার কেউ নেই। স্থানীয় সচেতন মহলরা জানান, কয়দিন আগেও কবির আহম্মদ গাড়ীতে কিলি পান বিক্রি করতো, হঠাৎ রাতারাতি আঙ্গুল ফুলে কলা গাছে কি ভাবে পরিনত হল তা ভাবনা ছাড়া আমাদের কিছু করার নেই। তারা আরো জানান, প্রশাসনের লোকজনের সাথে কবিরের গভীর সর্ম্পক সে ক্ষেত্রে কবিরের কিছুই হবে না বলে তাদের অভিমত। সূত্রে মতে দেশের চলমান মাদক বিরোধী অভিযান থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য তার স্ত্রী সাবেকুন্নাহারের হাতে ইয়াবা সিন্ডিকেটের দায়িত্বভার তোলে দিয়ে গ্রেপ্তার এড়াতে ইয়াবা কবির সৌদি আর পালিয়েছে। সূত্র মতে আরো জানা যায়, ইয়াবা কবিরের স্ত্রী সাবেকুন্নাহার তার বাপের বাড়ী সাবেক রুমখা এলাকায়ও কোটি কোটি টাকার সম্পদ গড়ে তোলেছে বলে জানা গেছে। উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী বলেন, ইয়াবা ব্যবসার সাথে জড়িত গডফাদারদের চিহ্নিত করে পাখিরমত গুলি করে দেশকে কলংক ও ইয়াবামুক্ত করতে হবে। অন্যতায় এ ইয়াবা ব্যবসা বন্ধ করা কখনো সম্ভব না। উখিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ নিকারুজ্জামান বলেন, সরকারি খাস জমির এক ইঞ্চি জায়গাও ইয়াবা ব্যবসায়ীদের দখলে যাবে না। তদন্ত পূর্বক খাস জমি দখলদারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে তিনি জানান। উখিয়া থানার ওসি মোঃ আবুল খায়ের বলেন, ইয়াবা ব্যবসায়ীরা যতবড়ই শক্তিধর হোক না কেন, তাকে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে।

Share this post

scroll to top