উখিয়ায় যাত্রীবাহি বাস খাদে পড়ে ১৫ এনজিও কর্মী আহত

pic-ukhiya.jpg

কায়সার হামিদ মানিক উখিয়া ::

কক্সবাজার টেকনাফ সড়কের উখিয়াস্থ বটতলী ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশনের বিপরীতে রোহিঙ্গা ক্যাম্প গামী একটি যাত্রীবাহি বাস নিয়ন্ত্রন হারিয়ে খাদে পড়ে যায়। ঘটনাস্থলে প্রায় ১৫ জন এনজিও কর্মী আহত হয়েছে। সোমবার সকাল ৮ টার দিকে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে বলে পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন। তাৎক্ষনিক ভাবে এলাকাবাসী ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা উদ্ধার অভিযান চালিয়ে আহত যাত্রীদের উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরন করেন। উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল মন্নান জানান, প্রায় ১৫ জন এনজিও কর্মী আহত হয়েছে। তৎমধ্যে আশংকাজনক অবস্থায় ১০ জনকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। এরা হচ্ছে, রামু ফতেয়ারকুল গ্রামের সৌরভ বড়–য়ার মেয়ে শ্রাবনী বড়–য়া (২২), একই গ্রামের মোঃ ইউনুছের ছেলে আব্দুল আজিজ (২৭), ঢাকা মোহাম্মদ পুর গ্রামের সৌরভ হোসনের ছেলে ইমরান (২৭), বারবাকিয়া এলাকার ফিরোজ আহম্মদের মেয়ে জন্নাতুল ফেরদৌস (২৩), বান্দরবানের আনকিস চাকমার ছেলে মিসকাউ চাকমা (২৭), পালংখালী ইউনিয়নের কবির আহম্মদের ছেলে মোঃ আজিম (২৫), মহেশখালী এলাকার কৃষœ রানার মেয়ে উষারানী দে (২৩), খুরুশকুলের অসীম দের স্ত্রী সন্ধ্যা দেয় (২৭), কক্সবাজার বাহারছড়া গ্রামের শাহ আজমের ছেলে শাহেদ আজিম (৩০), রাজশাহী হালদিয়া এলাকার মঞ্জুর আহম্মদের মেয়ে তাছমিনা পারভীন (৩০)। ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, কক্সলাইন সার্ভিসের একটি যাত্রীবাহি গাড়ী কক্সবাজার – ছ ১১- ০০১৩ বটতলী এলাকায় বিপরীত দিক থেকে আসা একটি মাটিভর্তি ডাম্পার গাড়ীকে সাইড দিতে গিয়ে চালক গাড়ী নিয়ন্ত্রন হারিয়ে ফেলে রাস্তার পাশে খাদে পড়ে যায়। উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল খায়ের জানান, উখিয়ার বিভিন্ন রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কর্মরত এনজিও কর্মীদের ভাড়া করা একটি গাড়ী তীব্র যানজটের কারনে নিয়ন্ত্রন হারিয়ে খাদে পড়ে যায়।

Share this post

scroll to top