উখিয়ায় নির্বিচারে পাহাড় কাটার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করেন নির্বাহী কর্মকর্তা নিকারুজ্জামান চৌধুরী

oe.jpg

উখিয়া ক্রাইম নিউজ ডেস্ক::

প্রধান অতিথি কক্সবাজার দক্ষিন বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মোঃ হুমায়ুন কবির বলেন, সামাজিক বনায়নের সাথে সংশ্লিষ্ট উপকারভোগীদের অতন্ত্র পহরীরমত বন সম্পদকে রক্ষনা বেক্ষন করতে হবে। বন বিভাগে লোকবল সংকটের কারনে বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা স্থানীয় হতদরিদ্র জনগোষ্টীকে বন বিভাগের সাথে সংশ্লিষ্ট করে সামাজিক বনায়নের আওতায় অন্তভোক্ত করে সবুজ এ বন সম্পদ গড়ে তোলার উদ্যোগ হাতে নিয়েছেন। রোববার দুপুর ১ টার দিকে ইনানী রেঞ্জের আওতাধীন জালিয়াপালং ইউনিয়নের জুম্মা পাড়াস্থ এলাকায় সামাজিক বনায়নের উপকারভোগীদের মাঝে দলিল হস্তান্তর অনুষ্টানে তিনি এসব কথা গুলো বলেন।
উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্টিত সভায় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী, উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মর্জিনা আক্তার মর্জু, উপজেলা সাবেক ভাইচ চেয়ারম্যান সোলতান মাহমুদ চৌধুরী, জালিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আমিন চৌধুরী, সহকারী বন সংরক্ষক আব্দুল্লাহ আল মামুন, ইনানী রেঞ্জ কর্মকর্তা মোঃ ইব্রাহিম হোসেন প্রমূখ। সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরী বলেন, নির্বিচারে পাহাড় কেটে ডাম্পার যোগে মাটি পাচার ও বনসম্পদ ধ্বংসকারীরা যত বড়ই ক্ষমতাধর হোকনা কেন কাউকে ছাড় দেওয়া হবেনা। পাহাড় কাটা, অবৈধ করাত কল ও গাছ কাঠা বন্ধে তিনি যুদ্ধ ঘোষনা করেন।

Share this post

scroll to top